প্রচেষ্টা প্রকল্পের ১০০০ টাকা কারা পাবার যোগ্য এবং কিভাবে আবেদন করবেন ? Manikchak News - Manikchak News

Manikchak News

প্রচেষ্টা প্রকল্পের ১০০০ টাকা কারা পাবার যোগ্য এবং কিভাবে আবেদন করবেন ? Manikchak News

প্রচেষ্টা প্রকল্প কোথায় কিভাবে দরখাস্ত করবেন ?

PRACHESTA SCHEME BY MAMTA BANERJE


করোনা ভাইরাসের জেরে গোটা রাজ্যে লকডাউন দীর্ঘমেয়াদি হয়েছে। আগামী ৩রা মে পর্যন্ত লকডাউন বহাল থাকবে। বিভিন্ন শিল্পকারখানা এবং অন্যান্য কর্মক্ষেত্র বন্ধ হয়ে রয়েছে। যার দরুন সাধারণ মানুষের অর্থ উপার্জনের সমস্ত পথ বন্ধ হয়ে গিয়েছে। স্বভাবতই, খেটে খাওয়া শ্রমিকদের জীবনযাপন করতে বহু কষ্টের সম্মুখীন হতে হচ্ছে। অনেক শ্রমিক অর্থাভাবে না খেয়ে দিন কাটাচ্ছেন। এমতাবস্থায়, রাজ্যের মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শ্রমিকদের জন্য "প্রচেষ্টা প্রকল্পের" ঘোষণা করেন।


রাজ্যের অসংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিকদেরকে ১০০০ টাকা করে অনুদান দেবে রাজ্য সরকার। অনেক আগেই এই প্রকল্পের ঘোষণা করলেও সবেমাত্র অফলাইনে ফর্ম পাওয়া গেছে। ফর্মটি ফিলআপ করে সংশ্লিষ্ট ব্লকে একটি নির্দিষ্ট দিনে গিয়ে জমা করতে হবে। প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস সহ ফর্মটি জমা করতে হবে।

এই প্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, এখন সব ধরণের কাজ পুরোপুরি বন্ধ হয়ে আছে। যারা কোনোরকম কাজ পাচ্ছেন না, হাতে একদম টাকা পয়সা নেই তাঁরা এককালীন ১০০০ টাকা করে পাবে এই প্রকল্পের মাধ্যমে।

কারা এই প্রকল্পে আবেদন করতে পারবেন এবং কিভাবে করবেন ? 

(i) পশ্চিমবঙ্গের স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে।
(ii) যার পরিবারে কেবল একজনই রোজগার করেন।
(iii) পরিবারের মধ্যে কেবল একজন আবেদন করতে পারবেন।
(iv) গ্রামাঞ্চলে BDO সাহেব সমস্ত তথ্য যাচাই করে দেখবেন, আবেদনকারী লকডাউনের কারণে কাজ হারিয়েছেন কিনা, তাঁর অন্য কোনো আয়ের উৎস আছে কিনা এবং আর্থিকভাবে পীড়িত কিনা।
(v)আবেদনগুলি বিবেচনা করার পর তবেই প্রচেষ্টা প্রকল্পের ওয়েবসাইটে আপলোড করা হবে।
(vi)সবশেষে নোডাল ডিপার্টমেন্ট অর্থাৎ শ্রমদপ্তরের দ্বারা আবেদনকারীদের প্রদত্ত ব্যাঙ্কে ১০০০ টাকা সরাসরি পাঠানো হবে।

Last Date of Application - 03/05/2020

"মানিকচক ব্লকের কমিউনিটি হলে" সম্ভবত 06/05/2020 তারিখে ফর্ম জমা নেওয়া হবে।

আবেদনের ফর্মটি ডাউনলোড করুনঃ  
prochesta prokolpo pdf download

ফর্মের সাথে কোন কোন ডকুমেন্টস জমা দেবেন ?

দরখাস্ত বা ফর্মটির সাথে জমা দেবেন -  ১ কপি রঙিন ফটো ফর্মে সেঁটে দিবেন।
ভোটার কার্ড, আধার কার্ড, জব কার্ড, BPL কার্ড বা নম্বর, ডিজিট্যাল রেশন কার্ড, ব্যাঙ্কের পাশবুকের প্রথম পাতা। সমস্ত ডকুমেন্টস জেরক্স করে নিজের সই করে ফর্মটির সাথে জমা দিয়ে দেবেন। 

Previous article
Next article

Leave Comments

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Articles Ads

Articles Ads 1

Articles Ads 2

Advertisement Ads